মঙ্গলবার, ১ ডিসেম্বর ২০২০, ১৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৭ 
Download Free FREE High-quality Joomla! Designs • Premium Joomla 3 Templates BIGtheme.net
Home / জাতীয় / বিশ্বব্যাপী বাদ্যযন্ত্র প্রতিযোগিতায় বাংলাদেশী বোরহানের কৃতিত্ব

বিশ্বব্যাপী বাদ্যযন্ত্র প্রতিযোগিতায় বাংলাদেশী বোরহানের কৃতিত্ব

বিশ্বব্যাপী অনলাইন ভিত্তিক বাদ্যযন্ত্র প্রতিযোগিতায় চুয়াডাঙ্গার বোরহান সাফল্যের দ্বারপ্রান্তে অবস্থান করছেন। সাফল্যের এ তালিকায় তিনি বাংলাদেশের একমাত্র প্রতিযোগী। অবস্থান করছেন টপ ২৫ এ।

ভারতীয় অনলাইন নোটস অ্যান্ড সারগাম (www.notesandsargam.com) কর্তৃক আয়োজিত ইনস্ট্রুমেন্টাল মিউজিক কনটেস্টের দ্বিতীয় রাউন্ডে বোরহান উদ্দিন বিশ্বাস টপ ২৫ এ অবস্থান করছেন। বিশ্বের ৭টি দেশের মধ্যে একমাত্র বাংলাদেশি হিসেবে টপ ২৫ এ যায়গা পাওয়ায় আপ্লূত বোরহান।

ভারত, যুক্তরাষ্ট্র, যুক্তরাজ্য, আফ্রিকা, বাংলাদেশ, শ্রীলঙ্কা ও কানাডার ২৩৭ জন অংশগ্রহণ করে এই অনলাইন ইনস্ট্রুমেন্টাল মিউজিক প্রতিযোগিতায়। নোটস অ্যান্ড সারগামে অংশগ্রহণকারীরা বাসুরি, স্যাস্কোফোন, ভায়োলিন, হাওয়াইন গিটার, অটিস্টিক গিটার, হারমোনিয়াম, মাউথ-অর্গানসহ বেশ কিছু বাদ্যযন্ত্রের মাধ্যমে প্রতিযোগিতায় অংশ নিচ্ছেন। ক্লাসিক্যাল বংশীবাদক বোরহান উদ্দিন বিশ্বাসের বাঁশির প্রতিযোগিতায় কৃতিত্ব দেখিয়ে চলেছেন।

বোরহান উদ্দিন বলেন, প্রবল ইচ্ছাশক্তি থাকলে কোন কিছু বাধা হতে পারে না। ১৪ বছরের সাধনাকালে বিভিন্ন সময়ে তিনি স্থানীয় সরকারি-বেসরকারি অনুষ্ঠানে ক্লাসিকাল বাঁশি বাজিয়েছেন। বাঁশি বাজিয়েছেন ঢাকার বেশ কয়েকটি অনুষ্ঠানে।

তিনি জানান, নোটস অ্যান্ড সারগামে আয়োজিত অংশগ্রহণকারীদের বয়স ১৯ থেকে ৬৩ বছরের মধ্যে রাখা হয়েছে। ২৩৭ জন অংশগ্রহণকারীর মধ্যে ২য় রাউন্ডে আছে ২৫ জন। এর মধ্যে ২২ জন ভারতীয়, একজন দুবাই, একজন ঘানা এবং বাংলাদেশের একমাত্র বোরহান উদ্দীন বিশ্বাস। এই ২৫ জনকে সনদপত্র প্রদান করবে ‘নোটস অ্যান্ড সারগাম’ ইন্ডিয়া।

দ্বিতীয় রাউন্ডের নির্দিষ্ট কিছু কারাওকে মিউজিক ট্রাক এর উপর ভিত্তি করে ১৫ নভেম্বরের মধ্যে ট্রাক পাঠাতে বলা হয়েছে। ইতিমধ্যেই তিনি তার মিউজিক ট্রাক পাঠিয়েছেন। বাকীটা বিচারকদের উপর নির্ভর করছে। ২য় রাউন্ডের ফলাফল দেখার অপেক্ষা করতে হবে আমাদের। ১০ জনকে নিয়ে ফাইনাল রাউন্ডে যাবে নোটস অ্যান্ড সারগাম।

৪০ বছর বয়সী- মেধাবী, পরিশ্রমী এবং আশাবাদী বোরহান উদ্দিন বিশ্বাস। তিনি বিশ্বাস করেন- সাধনার ফল বৃথা যায় না। চুয়াডাঙ্গা সদর উপজেলা গুলশান পাড়ার মরহুম খলিলুর রহমান বিশ্বাসের ছেলে বোরহান উদ্দিন বিশ্বাস বলেন, প্রতিটা রাউন্ডই খুবই চ্যালেঞ্জের হয়েছে। তবুও আমি আশাবাদী।

সকলের কাছে দোয়া চেয়েছেন কঠোর পরিশ্রমী এ ক্লাসিক্যাল বংশীবাদক। বর্তমানে তিনি একটি মাল্টিন্যাশনাল কোম্পানিতে চাকরি করছেন।

error: Content is protected !!